ডেঙ্গুতে আরো দুজনের মৃত্যু, নতুন ভর্তি ১০২৫

বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকা শিশু হাসপাতালে চার বছর বয়সের এক শিশু ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে বলে ওই হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। এ ছাড়া ঢাকার বাইরে আরো একজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। গতকাল বিকেলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মুন্নী বেগম (৫২) নামে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত এক নারীর মৃত্যু ঘটেছে বলে পরিবার সূত্র জানিয়েছে। গতকাল ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে এক হাজার ২৫ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশনস সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারী পরিচালক ডা. আয়েশা আক্তার জানান, গত ১ জানুয়ারি থেকে গতকাল সকাল পর্যন্ত সারা দেশে মোট ৬৯ হাজার ৪৩৫ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। এর মধ্যে ৬৪ হাজার ৫৫৮ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছে। বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন চার হাজার ৬৯৭ জন।

কন্ট্রোল রুমে ১৮০ জনের মৃত্যুর তথ্য এসেছে, যার মধ্যে ৮৮ জনের তথ্য পর্যালোচনা শেষে ৫২ জনের মৃত্যু ডেঙ্গুতে হয়েছে বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। আর চলতি আগস্ট মাসের ২৯ দিন শেষে গতকাল সকাল ৮টা পর্যন্ত মোট আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ছিল ৫০ হাজার ৯৭৪। গতকাল রাত নাগাদ তা আরো প্রায় এক হাজার বেড়ে যাওয়ার আভাস পাওয়া গেছে বিভিন্ন স্থানের খবরে।

ওই কর্মকর্তার তথ্য অনুসারে, গতকাল সকাল ৮টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় ঢাকায় ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হয়েছে ৪৬৫ জন এবং ঢাকার বাইরে ৫৬০ জন। এর মধ্যে ঢাকায় সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি হয়েছে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ৮৪ জন। এ ছাড়া মিটফোর্ড হাসপাতালে ৫৩, মুগদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ৪৪, শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ২৭ ও কুর্মিটোলা হাসপাতালে ৪৩ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ভর্তি হয়েছে। একই সময়ে ঢাকার বাইরে সবচেয়ে বেশি ৪১ জন রোগী ভর্তি হয়েছে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। আর বিভাগ হিসাবে সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি হয়েছে খুলনা বিভাগে ১৬০ জন। এ ছাড়া বেসরকারি হাসপাতালের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি হয়েছে হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট হাসপাতালে ১৯ জন।