অখণ্ড ভারতের দাবিতে পাকিস্তানের রাস্তায়ও পোস্টার দেখা গেলো

পাক অধিকৃত কাশ্মীর ও আকসাই চিনকে ভারতের অবিচ্ছেদ্য বলে মঙ্গলবারই হুঙ্কার ছেড়েছিলেন ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। আর তারপরই অখণ্ড ভারতের দাবিতে পাকিস্তানের রাস্তায় লাগানো হলো পোস্টার। কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ও ৩৫এ ধারার বিলুপ্তি ঘটানোয় যখন ভারতের বিরুদ্ধে সরব পাকিস্তান, তখন নিজের ঘরে বেড়ে ওঠা বিপদের আঁচ করতে পারলেন না ইমরান খান। ‘মহাভারত’ নামাঙ্কিত ওই বিশেষ পোস্টারে আফগানিস্তান থেকে শুরু করে পাকিস্তান, নেপাল, বাংলাদেশকে ভারতের অংশ হিসাবে দেখানো হয়েছে। এর সঙ্গে জুড়ে দেওয়া হয়েছে শিব সেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউতের একটি ঝাঁজাল মন্তব্য।

জানা গেছে, ইসলামাবাদের একাধিক রাস্তায় এই ধরনের পোস্টার দেখা গেছে। যেখানে ম্যাপের মাধ্যমে দেখানো হয়েছে আফগানিস্তান, পাকিস্তান, বেলোচিস্তান ও অধিকৃত কাশ্মীরসহ নেপাল, ভুটান, মায়ানমার পুরোটাই ভারতের অংশ। অর্থাৎ বোঝানো হয়েছে পশ্চিমে ইরান সীমান্ত থেকে উত্তরে চিন সীমান্ত পুরোটা জুড়ে গড়ে উঠবে অখণ্ড ভারত। তৈরি হবে ‘মহাভারত’৷ এখানেই শেষ নয়, সঙ্গে রয়েছে ৩৭০ ধারা বাতিলের পর শিব সেনা নেতা সঞ্জয় রাউতের একটি ঝাঁজালো বক্তব্য। যেখানে সংসদে দাঁড়িয়ে তিনি বলছেন, ‘আজ আমরা জম্মু-কাশ্মীর আদায় করেছি। আগামিকাল আমরা বেলোচিস্তান ও অধিকৃত কাশ্মীর দখল করবো। এই সরকারের ওপর আমাদের বিশ্বাস রয়েছে এবং আমরা অখণ্ড ভারতের স্বপ্ন সফল করবোই।’

সূত্রের খবর, এই পোস্টার ঘিরেই এখন চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ইসলামাবাদে। কে বা কারা এই ধরনের পোস্টার লাগাল, সেই প্রশ্ন ঘিরে তৈরি হয়েছে জল্পনা।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার লোকসভায় জম্মু-কাশ্মীর পুনর্গঠন বিল পেশের পরই ভারতের অখণ্ডতা রক্ষার্থে হুঙ্কার ছাড়েন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। কংগ্রেসকে একহাত নিয়ে তিনি বলেন, ‘ওই অঞ্চলের জন্য জীবন দিতে রাজি আছি। যখন আমি কাশ্মীরের কথা বলি, তখন সংবিধানে উল্লেখিত ভারতের সীমানাকে মাথায় রেখেই, কথা বলি। অধিকৃত কাশ্মীর ও আকসাই চিনকে আমি ভারতের অংশ হিসাবেই দেখি। জম্মু-কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসাবেই ভাবি।’ এরপরই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরতে থাকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সেই বক্তব্যের ভিডিও। প্রশংসা করেন নেটিজেনরা। তারপরই ইসলামাবাদের রাস্তায় দেখা অখণ্ড ভারতের পোস্টার।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন