‘প্রধানমন্ত্রীর কারণে এবারের হজ ইতিহাসের সফলতম’

‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে এবার ইতিহাসের একটি সফলতম হজ ব্যবস্থাপনা পরিচালনা করা হয়েছে। এ বছর হজের খরচ কমিয়ে আনার চেষ্টা করা হয়েছে। কোনো ধরনের ভোগান্তি ছাড়াই এবার হজ করতে গেছেন হজযাত্রীরা।’

আজ রবিবার (৪ আগস্ট) দুপুর ১২টায় রাজধানীর আশকোনা হজক্যাম্পে ‘হজ কার্যক্রম ২০১৯’ এর সমাপ্তি উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মো. আবদুল্লাহ।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে এবার ইতিহাসের একটি সফলতম হজ ব্যবস্থাপনা পরিচালনা করা হয়েছে। এ বছর হজের খরচ কমিয়ে আনার চেষ্টা করা হয়েছে। ফলে হজযাত্রীদের বিমান ভাড়া বাবদ ১০ হাজার ১৯০ টাকা পর্যন্ত কমানো সম্ভব হয়েছে। অন্যান্য বছরের স্বাভাবিক ব্যয় বাড়ার সঙ্গে তুলনা করলে এ বছর প্রকৃত হিসেবে ব্যয় বাড়েনি, বরং কমেছে। তবে সৌদি সরকারের চার্জ বাড়ানোর কারণে ২৫ হাজার ছয় টাকা বেড়েছে।

প্রধানমন্ত্রীর কারণেই এবার আল্লাহর ঘরের মেহমানদের চোখে পানি দেখতে পাইনি উল্লেখ করে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী বলেন, কোনো অবস্থাতেই  আল্লাহর ঘরের মেহমানদের চোখে পানি পড়তে দেননি প্রধানমন্ত্রী। কোনো ধরনের ভোগান্তি ছাড়াই তাঁরা এবার হজ করতে গেছেন।’

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, ‘এ পর্যন্ত হজের ভিসাপ্রাপ্ত যাত্রীর সংখ্যা এক লাখ ২৬ হাজার ৭৩৬ জন। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস ও সৌদি এয়ারলাইনসে এরইমধ্যে এক লাখ ১৯ হাজার ৮০০ জন হজযাত্রী সৌদি পৌঁছেছেন। বাকিরা পৌঁছাবেন ৪ ও ৫ আগস্ট। এবার ছয় হাজার ৯২৩ ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় এক লাখ ২০ হাজার মানুষ হজ পালনে গেছেন সরকারি ব্যবস্থাপনায়।’ তিনি বলেন, ‘প্রথমবারের মতো এবার  চালু হওয়া ‘রোড টু মক্কা ইনিশিয়েটিভ’ বা ঢাকায় সৌদি ইমিগ্রেশন প্রক্রিয়া সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে।