ক্রিকেট কোচ রোডসের বিদায়

বিশ্বকাপে প্রত্যাশিত ফল করতে না পারার হতাশা অবশ্যই আছে। যা কাটিয়ে ওঠার সহজ উপায় হলো দ্রুতই আবার খেলায় ডুবে যাওয়া। বাংলাদেশ দল সেই সুযোগ পাচ্ছেও। এই মাসের শেষেই যে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে শ্রীলঙ্কায় যাচ্ছে তারা।

বিশ্বকাপ আসে-যায়, তাতে সাফল্য-ব্যর্থতা ধরে কোনো দলই বসে থাকে না। বরং পরের আসর সামনে রেখে আবার নতুন করে শুরু করে। শুরু করছে বাংলাদেশও। তবে নতুন পথের যাত্রায় আর সঙ্গী হচ্ছেন না হেড কোচ স্টিভ রোডস। তাঁর সঙ্গে সম্পর্ক চুকিয়ে ফেলেছে বিসিবি। যেটিকে সংস্থার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন চৌধুরী বলছেন ‘মিউচ্যুয়াল সেপারেশন’। অর্থাৎ পারস্পরিক সমঝোতার ভিত্তিতেই এই সম্পর্কচ্ছেদ। দল বিশ্বকাপ থেকে দেশে ফেরার আগেই অবশ্য খবর রটে গিয়েছিল যে এই ইংলিশম্যানকে আর রাখছে না বিসিবি। তবে শ্রীলঙ্কা সিরিজ পর্যন্ত তাঁকে রেখে দেওয়ার খবরও ছিল। কিন্তু দেশের সর্বোচ্চ ক্রিকেট প্রশাসন অতটা অপেক্ষা করল না আর। পরশু দলের সঙ্গেই দেশে ফেরা কোচকে দ্রুতই বিদায় করার সিদ্ধান্তে পৌঁছে গেল।

যদিও এটিকে ‘বরখাস্ত’ বলতে রাজি নন বিসিবির প্রধান নির্বাহী। অস্ট্রেলিয়ায় ২০২০ সালের অক্টোবরে অনুষ্ঠেয় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত রোডসের সঙ্গে চুক্তি থাকলেও পুনর্বিবেচনা করার সুযোগ ছিলই। সেটিই জানিয়ে নিজাম উদ্দিন বললেন, ‘চুক্তি অনুযায়ী এই বিশ্বকাপের পর চুক্তি পর্যালোচনার সুযোগ ছিল। আমাদের পক্ষ থেকে যেমন ছিল, তেমনি ওনার (রোডসের) পক্ষ থেকেও। বলা যেতে পারে আমরা পারস্পরিক সমঝোতার ভিত্তিতেই এই চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসছি। শ্রীলঙ্কা সফরের আগে থেকেই যা কার্যকর হয়ে যাচ্ছে।’ তাহলে শ্রীলঙ্কা সফরে কে হবেন বাংলাদেশ দলের কোচ? এ প্রশ্নের জবাবে বিসিবি প্রধান নির্বাহী এখনই কোনো নাম জানাতে সম্মত হননি, ‘আমাদের আলোচনায় তো কিছু কোচ আছেনই। তবে এখনই আমরা নাম বলতে চাইছি না।’