অগ্নিসাক্ষী করে বিয়ে করলেন নুসরাত

আগেই শোনা গেছে, দুই রীতিতে বিয়ে করবেন ভারতের বাংলা ছবির জনপ্রিয় তারকা ও পশ্চিমবঙ্গ থেকে লোকসভার নবনির্বাচিত সদস্য নুসরাত জাহান। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো বলেছে, বুধবার নুসরাত জাহান আর নিখিল জৈনের বিয়ে হবে ভারতীয় রীতিতে, আর আজ বৃহস্পতিবার খ্রিষ্টান রীতিতে বিয়ে হবে তাঁদের। কলকাতায় ফিরে আসার পর তাঁদের বিয়ে রেজিস্ট্রি করা হবে। এবার জানা গেছে, গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় তুরস্কের রোমান্টিক বন্দর শহর বোদরুমের সিক্স সেন্সেস কাপলাঙ্কায়া রিসোর্টে অগ্নিসাক্ষী করে বিয়ে করেছেন নুসরাত জাহান ও নিখিল জৈন। রাতেই বিয়ের ছবি আর ভিডিও নুসরাত জাহান নিজেই ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন।

বিয়েতে নুসরাত জাহানের পরনে ছিল লাল লেহেঙ্গা চোলি, গলায় বরমালা ও ভারী গয়না আর হাতে লাল-সাদা ও সোনালি রঙের চূড় ও কালিরাস এবং মাথায় টিকলি। নিখিল জৈন পরেছিলেন হালকা গোলাপি রঙের শেরওয়ানি। মাথায় সেহরা আর গলায় রত্নখচিত মালা। বিয়ের আসরে নুসরাত জাহান আসেন রাজকন্যার বেশে আর রাজপুত বরের বেশে নিখিল জৈন।

বিয়েতে নুসরাতের জন্য নাকি নিখিল জৈনের প্রতিষ্ঠান থেকে বিশেষভাবে ডিজাইন করা পোশাক গেছে তুরস্কে। নুসরাতের জুতার ডিজাইন করেছেন কলকাতার বিশিষ্ট শু ডিজাইনার রোহন অরোরা।

ভিডিওতে দেখা গেছে, হেঁটে বিয়ের মঞ্চে আসেন নুসরাত জাহান। চেয়ারে বসে হাত রাখেন নিখিল জৈনের হাতে। বিয়ের মন্ত্র উচ্চারণে জন্য পুরোহিত ততক্ষণে তৈরি হয়ে বসে আছেন। নুসরাত জাহান আর নিখিল জৈনের বিয়ের সময় সিক্স সেন্সেস কাপলাঙ্কায়া রিসোর্টের চারদিকে ছিল আলোর রোশনাই। বর-কনেকে সবাই হাততালি দিয়ে স্বাগত জানান। নববিবাহিত দম্পতিকে নিয়ে বন্ধুরা হাসিঠাট্টা ও খুনসুটি করেছেন। এ সময় টালিউড থেকে উপস্থিত ছিলেন নুসরাত জাহানের ঘনিষ্ঠ বন্ধু, ভারতের বাংলা ছবির আরেক জনপ্রিয় তারকা ও পশ্চিমবঙ্গ থেকে লোকসভার নবনির্বাচিত সদস্য মিমি চক্রবর্তী।

গত সোমবার রাতে বোদরুম শহরে পাম অ্যাভিনিউয়ের ইডেন ইম্পেরিয়ালের পুলসাইডে হয় ইয়র্ট পার্টি। গত মঙ্গলবার হলো মেহেদি ও সংগীতের অনুষ্ঠান। গতকাল বুধবার বিয়ের আগে সকালে হলো গায়েহলুদের অনুষ্ঠান। আজ রাতে থাকছে ‘হোয়াইট ওয়েডিং’ পার্টি। তার আগে খ্রিষ্টান রীতিতে বিয়ে হবে তাঁদের।

তুরস্কের বোদরুমে নুসরাত জাহান আর নিখিল জৈনের বিয়েতে আমন্ত্রিত অতিথি ৩০ জন। আছেন তাঁদের দুজনের পরিবার, বন্ধু, সহকর্মী আর মেকআপ টিম। বিয়েতে ছিল খাবারের এলাহি আয়োজন।

নুসরাত জাহান ও নিখিল জৈনের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান হবে আগামী ৪ জুলাই, সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায়, কলকাতায় আইটিসি রয়্যাল বেঙ্গলে। এই আমন্ত্রণপত্রের ছবি প্রকাশ্যে এসেছে। এই আমন্ত্রণপত্র ডিজাইন করেছেন মুম্বাইয়ের একজন শিল্পী। গোল আকৃতির সেলাই করা উডেন ফ্রেম। তার মাঝে হবু দম্পতির নাম দিয়ে লেখা আমন্ত্রণবার্তা। ভিন্ন রঙের সুতা দিয়ে সেলাই করা ফুলের মাঝে নিখিল ও নুসরাতের ছবি।

নুসরাত জাহান ও নিখিল জৈন দম্পতি কলকাতায় ফিরবেন ২৫ জুনের আগেই। কারণ, ২৫ জুন দিল্লিতে সাংসদ হিসেবে লোকসভার প্রথম অধিবেশনে যোগ দেবেন নুসরাত।

নুসরাত জাহানের বর নিখিল জৈন কলকাতার ছেলে। ব্যবসায়ী, তবে চলচ্চিত্রের সঙ্গে কোনো যোগাযোগ নেই। এমপি বিড়লা ফাউন্ডেশনে পড়াশোনার পর যুক্তরাজ্যের ওয়ারউইক বিশ্ববিদ্যালয়ে ম্যানেজমেন্টের ওপর পড়াশোনা করেছেন। গত বছর পূজার আগে ব্যবসায়ী নিখিল জৈনের শাড়ির ব্র্যান্ডের বিজ্ঞাপনের মুখ হয়েছিলেন নুসরাত জাহান। এই কাজের সূত্রেই তাঁদের পরিচয়। অল্প দিনেই সম্পর্ক গাঢ় হয়। এরপর তাঁরা দুজনে মিলেই বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন।