ভারত ছাড়াও অন্যদেশ থেকে নিত্যপণ্য আমদানির চুক্তি হচ্ছে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী

বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু বলেছেন, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের জন্য আমরা ভারত ছাড়াও মিয়ানমার, রাশিয়া, ব্রাজিলের সাথে বাণিজ্য চুক্তি নিয়ে কাজ করছি।

আজ মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) রাজধানীর কারওয়ান বাজারে ভারত থেকে আমদানিকৃত পেঁয়াজ বিক্রি কার্যক্রম উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

পেঁয়াজ রপ্তানি করায় ভারত সরকারকে ধন্যবাদ দিয়ে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী বলেন, ভারতের ৮০০ ডলারের পেঁয়াজ ৪০০ ডলারে আমরা আনতে পেরেছি। ভারতের অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে পেঁয়াজ দেওয়ায় ভারতের বাণিজ্যমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই।

আহসানুল ইসলাম টিটু আরও বলেন, ‘বাজারে পণ্যের সরবরাহ বাড়াতে কাজ করছে মন্ত্রণালয়। পর্যায়ক্রমে বাকি পেঁয়াজ আনার ব্যবস্থা করবো। ঢাকা ও চট্টগ্রামে বিক্রি কার্যক্রমে দেশের অন্যান্য জায়গায় পেঁয়াজের দাম কমে যাবে।’

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষ জানান, এ আমদানি কার্যক্রম সরকারের সফল বাণিজ্য কূটনীতির ফল। ভারতের রপ্তানি নিষেধাজ্ঞা হলেও বাংলাদেশের জন্য বিশেষ কোটা থাকবে।

এর আগে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এ এইচ এম সফিকুজ্জামান সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন।

প্রসঙ্গত, ভারত থেকে আমদানির ৫০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজের ১ হাজার ৬৫০ টন পেঁয়াজ দেশে পৌঁছেছে। প্রতিজন ভোক্তা ৪০ টাকা দরে পেঁয়াজ কিনতে পারবেন, যা ঢাকা মহানগরের ১০০টি স্থানসহ গাজীপুর ও চট্টগ্রাম মহানগর এর খোলাবাজারে আজ থেকে বিক্রি হচ্ছে।

এসময় ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের অতিরিক্ত পরিচালক খন্দকার নুরুল হক ও মোহাম্মদ রবিউল মোর্শেদ, ওয়ার্ড কাউন্সিলর শামীম হাসানসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এস/ভি নিউজ

পূর্বের খবরকৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা নিয়ে নীতিমালা করছে সরকার, কী আছে খসড়ায়
পরবর্তি খবরডিএসসিসির লাল জোনে বসবে না হকারের দোকান