চার বিভাগে বইছে তাপপ্রবাহ, এতে কী সমস্যা হতে পারে জানাল আবহাওয়া অফিস

রংপুর বিভাগের দুই জেলাসহ দেশের চার বিভাগে আজ মঙ্গলবার বইছে মৃদু থেকে মাঝারি তাপপ্রবাহ। দ্রুত এই তাপপ্রবাহ বন্ধ হওয়ার সম্ভাবনা কম, বরং আরও নতুন স্থানে তাপপ্রবাহ বিস্তৃত হতে পারে। তাপপ্রবাহ বেড়ে যাওয়ার ফলে বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ বেড়েছে। আর এতে মানুষের অস্বস্তি বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আজ সকাল নয়টায় আবহাওয়া অধিদপ্তরের দেওয়া পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, নীলফামারী, দিনাজপুর জেলাসহ রাজশাহী, ঢাকা, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এই তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে। আর তা আরও বিস্তার লাভ করতে পারে।

আবহাওয়ার বার্তায় বলা হয়েছে, বাতাসে জলীয় বাষ্প বেশি থাকার কারণে এ পরিস্থিতিতে মানুষের অস্বস্তি বাড়তে পারে।

এমন অবস্থার কারণ কী, জানতে চাইলে আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ আফরোজা সুলতানা প্রথম আলোকে বলেন, দক্ষিণ থেকে আসা প্রচুর জলীয় বাষ্প এখন বাতাসে রয়ে গেছে। এ অবস্থায় যেটা হয়, মানুষের ঘাম হয় প্রচুর। গরম হয়তো ততটা বেশি থাকে না, কিন্তু এর অনুভব অনেক থাকে। আর তাই এই অস্বস্তি।

এই প্রচণ্ড গরমের মধ্যে দুই বিভাগের দু–একটি স্থানে বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অফিস। তারা বলেছে, আজ চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের দু–এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা বা ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে কোথাও কোথাও এর প্রভাবে শিলা বৃষ্টি হতে পারে। এ ছাড়া দেশের অন্যত্র অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।

আবহাওয়াবিদ আফরোজা সুলতানা বলেন, আজ কিংবা আগামীকাল বুধবার রাজধানী বা এর আশপাশের এলাকায় বৃষ্টির সম্ভাবনা কম। এসব এলাকায় বরং তাপ আরও বাড়তে পারে।

সারা দেশে দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে এবং রাতের তাপমাত্রা সামান্য কমতে পারে।

এস/ভি নিউজ

পূর্বের খবরভারতের রাজনীতিতে হঠাৎ বাংলাদেশ প্রসঙ্গ
পরবর্তি খবরআবার হ্যাটট্রিক ফারিহার, এবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে