পর্যটকশূন্য কুয়াকাটা, লোকসানে ব্যবসায়ীরা

রমজানের শুরু থেকেই পর্যটকশূন্য হয়ে পড়েছে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত। লোকসানের মুখে পড়েছে পর্যটন সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীরা। ছুটি দেওয়া হয়েছে অনেক হোটেল-মোটেলের কর্মচারীদের।

সরেজমিতে দেখা গেল, খালি পড়ে আছে সৈকতে পাতা বেঞ্চ। ঘোড়াগুলো ঘুমাচ্ছে। বন্ধ রয়েছে অধিকাংশ দোকানপাট। অলস সময় পার করছেন ক্যামেরাম্যানরা।

ক্যামেরাম্যান জুলহাস মিয়া জানান, রমজানের শুরু থেকেই কুয়াকাটা পর্যটকশূন্য হয়ে পড়েছে। আমরা সারাদিন অলস সময় পার করছি। এখন কোন ইনকাম নেই। তাই পরিবার পরিজন নিয়ে চলতে অনেক কষ্ট হচ্ছে। আচার ব্যবসায়ী সুলতান আকন জানান, লোকজন নেই, বিক্রিও নেই।

ছাতা-বেঞ্চ ব্যবসায়ী নুর ইসলাম জানান, রমজান মাসে পর্যটক নেই। সরকারিভাবে কোন সহায়তা পেলে এই কয়েকটা দিন আমরা পরিবার-পরিজন নিয়ে একটু ভালোভাবে চলতে পারতাম।

কুয়াকাটা হোটেল-মোটেল ওনার্স এ্যাসোশিয়েশনের সাধারন সম্পাদক মোতালেব শরীফ জানান, কর্মচারীদের বেতন এবং বিদ্যুৎ বিল দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। অনেক হোটেল মালিক কর্মচারীদের ছুটিতে পাঠিয়েছে। আশা করছি ঈদের পরে এই পরিস্থিতি কেটে যাবে। ব্যাপক পর্যটক আগমন ঘটবে এবং লোকসান কাটিয়ে উঠতে পারবো।

কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন হোসেন জানান,  ছোট ছোট ব্যবসায়ীদের সহায়তার বিষয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হবে।

এস/ভি নিউজ

পূর্বের খবরবছরের ব্যবধানে নিত্যপণ্যের দাম বেড়ে দ্বিগুণেরও বেশি, অসহায় ভোক্তারা
পরবর্তি খবর‘মানুষের দোরগোড়ায় চিকিৎসাসেবা পৌঁছে দিতে কাজ করছি’