নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে, ৫ বিভাগে বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস

21

আন্দামান সাগরে উৎপন্ন লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে। এটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে বলে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে। নিম্নচাপের প্রভাবে আজ রবিবার দেশের পাঁচ বিভাগে বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

পূর্বাভাসে বলা হয়, খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং ঢাকা ও সিলেট বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি হতে পারে।

নিম্নচাপের প্রভাবে মঙ্গলবার পর্যন্ত বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। বৃষ্টিপাতের কারণে সারা দেশে দিনের তাপমাত্রা প্রায় ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমতে পারে। তবে পরবর্তী পাঁচ দিনে বৃষ্টিপাতের প্রভাব কেটে যাবে।

আবহাওয়াবিদরা জানান, বাংলাদেশ থেকে প্রায় এক হাজার ২০০ কিলোমিটার দূরে আন্দামান সাগরে উৎপন্ন হওয়া লঘুচাপটি ঘনীভূত হয়ে ক্রমে উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হচ্ছে। গতকাল শনিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত তা নিম্নচাপ আকারে পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তত্সংলগ্ন দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর এবং উত্তর আন্দামান সাগর এলাকায় অবস্থান করছিল। তা আরো ঘনীভূত হয়ে উত্তর-পশ্চিম দিকে এগিয়ে আসতে পারে।

আবহাওয়াবিদ হাফিজুর রহমান জানান, নিম্নচাপটি ঘনীভূত হয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হলে এর নাম হবে ‘সিত্রাং’। নিম্নচাপটি বর্তমানে বাংলাদেশের দিকেই এগিয়ে আসছে। এখন যে গতি-প্রকৃতি, এতে বাংলাদেশের ওপর ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাব থাকতে পারে। বিশেষ করে চট্টগ্রাম ও বরিশাল বিভাগের উপকূলীয় অঞ্চলগুলোতে আবহাওয়ার অবনতি হতে পারে। তবে আজ রবিবার বিকেল পর্যন্ত এর গতি-প্রকৃতি পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তখন সুস্পষ্টভাবে বাংলাদেশে এর প্রভাব সম্পর্কে জানা যাবে।

অধিদপ্তর জানায়, গতকাল দুপুর ১২টায় নিম্নচাপটি চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে এক হাজার ২৫ কিলোমিটার দক্ষিণে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৯৪০ কিলোমিটার দক্ষিণে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে এক হাজার ৭০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্বে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে এক হাজার পাঁচ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্বে অবস্থান করছিল। নিম্নচাপের কেন্দ্রস্থল থেকে ৪৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার থেকে বেড়ে ঝোড়ো হাওয়া আকারে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। এর প্রভাবে কেন্দ্রের নিকটবর্তী এলাকায় সাগর উত্তাল রয়েছে। নিম্নচাপের কারণে  এসব সমুদ্রবন্দরকে ১ নম্বর দূরবর্তী সতর্কসংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। এ ছাড়া মাছ ধরার নৌকা ও ট্রালারকে উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।