‘আমাকে পছন্দ না হলে আমার ছবি দেখবেন না’ : নেপোটিজম বিতর্কে আলিয়া

বলিউডের উঠতি নায়িকাদের মধ্যে বর্তমানে অন্যতম আলিয়া ভাট। বলিউডের শক্তিশালী নির্মাতা ও প্রযোজক মহেশ ভাটের মেয়ে তিনি। ২০১২ সালে বলিউডের আরেক বিখ্যাত নির্মাতা ও প্রযোজক করণ জোহরের হাত ধরেই সিনে জগতে অভিষেক হয় মহেশ কন্যার। তাই শুরু থেকেই ‘নেপোটিজম’ বিতর্কে নাম লিখিয়েছেন এই অভিনেত্রী।

কখনও সুর উঠেছে মহেশ কন্যা বলেই তিনি বলিউডে চান্স পেয়েছেন, কেউ আবার বলে থাকে করণ জোহরের অত্যন্ত প্রিয় হিসেবেই তাকে জায়গা করে দিয়েছে করণ। দীর্ঘ দিন ধরে চলতে থাকা এই বিতর্কে অবশেষে এবার মুখ খুললেন আলিয়া ভাট।

সম্প্রতি ‘মিড-ডে’ এর সাথে এক আলাপচারিতায় ‘নেপোটিজম’ সম্পর্কে আলিয়া বলেন, ‘এটি মোকাবেলা করার দুটি উপায় আছে। একটি হচ্ছে নিজেকে নিয়ন্ত্রিত রেখে কাজের মাধ্যমে আমি আমার যোগ্যতার প্রমান করতে পারি। আমি বিশ্বাস করি যে মানুষের নেতিবাচক মন্তব্য বন্ধ করার একমাত্র উপায় হল আমার ভালো সিনেমা। সুতরাং, প্রতিক্রিয়া করব না, খারাপ মনে করব না। অবশ্য আমার খারাপ লাগে। ’

এরপর এই অভিনেত্রী আরো বলেন, আপনি যে কাজের জন্য সম্মানিতবোধ করেন এবং ভালোবাসা পাচ্ছেন, সেই কাজের জন্য খারাপ বোধ করা মানে ছোটখাটো মুল্য দেয়ার মতোই! তাই আমি চুপ হয়ে গিয়েছি, বাসায় গিয়ে আমার কাজ করেছি। এরপর ‘গাঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি’র মতো একটি সিনেমা উপহার দিয়েছি। তাহলে কে শেষ হাসি হাসছে? অন্তত আমার পরবর্তী সিনেমা ফ্লপ হওয়ার আগ পর্যন্ত আমিই হাসছি। ’

kalerkanthoসাম্প্রতিক ফটোশ্যুটে আলিয়া ভাট

তারপর ‘নেপোটিজম’ এর ধোঁয়া তোলা দর্শকদের উদ্দেশ্যে এই অভিনেত্রী আরো বলেন, ‘যদি আমাকে পছন্দ নাই হয়, তাহলে আমাকে দেখবেন না। এই ব্যাপারে আমার তো কিছু করার নেই। মানুষের কিছু বলার থাকতেই পারে। আশা করি, আমি আমার সিনেমার দ্বারা প্রমাণ করতে পারব যে জায়গাটা আমি দখল করে আছি, আমি তার যোগ্য। ’

সামনেই রণবীর এবং আলিয়ার নতুন সিনেমা ‘ব্রহ্মাস্ত্র’ মুক্তি পাচ্ছে। তা নিয়েও অনুরাগীদের মধ্যে উত্তেজনা কম নয়। বেশ কয়েকটি সিনেমাও তাঁর হাতে আছে। এছাড়াও প্রথমবারের মতো মা হতে যাচ্ছেন এই অভিনেত্রী।

সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস