চুক্তির পরে ইউক্রেন থেকে গম রফতানি শুরু

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ শুরুর পর প্রথমবারের মতো ইউক্রেন থেকে গম রফতানি শুরু হয়েছে। শুক্রবার দুটি জাহাজ দেশটির কৃষ্ণসাগরীয় বন্দর ছেড়ে যায়। এর একটি গম বোঝাই ছিল। তুরস্কের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এই তথ্য জানিয়েছে।

এর আগে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগানের কূটনৈতিক প্রচেষ্টায় ও জাতিসংঘের মধ্যস্থতায় গত মাসে (২২ জুলাই) রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে শস্য রফতানি বিষয়ে একটি চুক্তি সাক্ষরিত হয়।

চুক্তির আওতায় ১ আগস্ট ইউক্রেনের ওডেসা বন্দর ত্যাগ করে শস্যবাহী প্রথম জাহাজ। সিয়েরা লিওনের পতাকাবাহী পণ্য বোঝাই প্রথম জাহাজ রেজোনি লেবাননের উদ্দেশে ওডেসা বন্দর ছাড়ে। জাতিসংঘ এক বিবৃতিতে জানায়, জাহাজটিতে ২৬ হাজার টন ভুট্টা ছিল। এ পর্যন্ত মোট ১৪টি জাহাজ বন্দর ছেড়ে গেছে। কারণ এর আগে ১২টি জাহাজ অন্যান্য খাদ্যপণ্য নিয়ে ইউক্রেন ত্যাগ করে।

শুক্রবার তুর্কি মন্ত্রণালয় জানায়, বেলিজ-পতাকাবাহী সোরমোভস্কি ৩ হাজার ৫০ টন গম নিয়ে ইউক্রেনের চোরনোমর্স্ক বন্দর ছেড়েছে। এটির গন্তব্য তুরস্কের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় টেকিরদাগ প্রদেশ। এছাড়া মার্শাল দ্বীপ-পতাকাবাহী স্টার লরা ৬০ হাজার টন ভুট্টা নিয়ে ইরানের উদ্দেশে রওয়ানা হয়েছে। জাহাজটি ইউঝনি শহরের পিভডেনি বন্দর থেকে ছেড়েছে। সূত্র : ডেইলি সাবা/ইউএস নিউজ