২৩ বছরেই ১১ সন্তানের জননী, লক্ষ্য শতাধিক

16
Social Share

জর্জিয়ার নাগরিক ক্রিস্টিনার বয়স মাত্র ২৩ বছর, এই অল্প বয়সেই ১১ সন্তানের মা হয়েছেন তিনি। এখানেই থামছেন না তিনি, সন্তানের সংখ্যা ‘সেঞ্চুরি’ পার করতে চান এ নারী। তার স্বপ্ন একসময় শতাধিক বাচ্চা দৌড়ে বেড়াবে করবে তার ঘরে।

জানা যায়, রুশ বংশোদ্ভূত ক্রিস্টিনা উজটার্ক ও তার স্বামী গালিপ উজটার্ক থাকেন জর্জিয়ায়। সেখানকার একটি বড় হোটেলের মালিক ক্রিস্টিনার স্বামী। এ দম্পতির অর্থের কোনো অভাব নেই। তারা বাচ্চা খুব ভালোবাসেন। দুজনেরই ইচ্ছা, তাদের ঘরজুড়ে বাচ্চারা খেলা করে বেড়াক। সেই শখ পূরণে চেষ্টার কমতি রাখছেন না কেউই।

নিজেদের ১১ সন্তানের অবশ্য সবাইকে গর্ভে ধরেননি ক্রিস্টিনা। জর্জিয়ায় গর্ভ ভাড়া দেওয়া আইনসিদ্ধ। এ দম্পতির ১১ সন্তানের মধ্যে ১০ জনেরই জন্ম হয়েছে ওই পদ্ধতিতে। অর্থাৎ গালিপের শুক্রাণু ব্যবহার করে অন্য কোনো নারীর গর্ভে জন্ম নিয়েছে তাদের সন্তান।

২৩ বছরেই ১১ সন্তানের জননী, লক্ষ্য শতাধিক

১১ শিশুর মধ্যে শুধু একটি সন্তান জন্ম দিয়েছেন ক্রিস্টিনা। ছয় বছর আগে ভিকা নামে এক কন্যাসন্তানের জন্ম দেন তিনি। ক্রিস্টিনার গর্ভে ধারণ করা একমাত্র সন্তান সে।

গর্ভ ভাড়া নেওয়া অবশ্য বেশ খরচসাপেক্ষ। কোটিপতি এ দম্পতির কাছে তা একেবারেই ছোটখাটো বিষয়।

ক্রিস্টিনা জানান, গর্ভ ভাড়া নেওয়ার জন্য তাদের আট হাজার ইউরো (৮ লাখ টাকার বেশি) করে খরচ করতে হয়েছে। অর্থাৎ ১০ সন্তানের জন্য মোট ৮০ হাজার ইউরো (৮২ লাখ টাকারও বেশি) খরচ হয়েছে।

সম্প্রতি ২৩ বছরের এ নারী ইন্টারনেটে তাদের স্বপ্নের কথা তুলে ধরেছেন। এক টুইটে তিনি লিখেছেন, গত মাসে তাদের কনিষ্ঠতম সন্তান অলিভিয়া জন্ম নিয়েছে। ঘরে অন্তত ১০৫টি সন্তান দেখার স্বপ্ন দেখেন এ দম্পতি।