হামাসের দাবি ইসরায়েল ১১দিনের লড়াইয়ে তাদের সুড়ঙ্গ নেটওয়ার্ক ধ্বংস করতে পারেনি

39
Social Share

গাযায় হামাসের নেতা দাবি করেছেন যে, ইসরায়েল তাদের সুড়ঙ্গ নেটওয়ার্ক ধ্বংস করতে ব্যর্থ হয়েছে।

গত মাসের রক্তক্ষয়ী সংঘাতের সময় ইসরায়েল বলেছিল হামাসের এই টানেল বা সুড়ঙ্গ নেটওয়ার্ক ধ্বংস করা তাদের অন্যতম লক্ষ্য।

আজ শনিবার এক বক্তৃতায় হামাসের নেতা ইয়াহিয়া সিনওয়ার ইসরায়েলের সামরিক লক্ষ্য হামাস কীভাবে ব্যর্থ করে দিয়েছে তা আলাদা আলাদা ভাবে তালিকা করে তুলে ধরেন।

বিবিসির মধ্য প্রাচ্য সম্পাদক সেবাস্টিয়ান আশার বলছেন হামাস নেতা মি. সিনওয়ার তার এই বক্তৃতায় হামাসের দিক থেকে আবার একবার বিজয় দাবি করেছেন।

মি. সিনওয়ার বলেন, ইসরায়েল তাদের সুড়ঙ্গে নেটওয়ার্কের তিন শতাংশের কম ধ্বংস করতে পেরেছে।

ফিলিস্তিনি গোষ্ঠী হামাস যারা গাযা নিয়ন্ত্রণ করে ইসরায়েল বিমান হামলা চালিয়ে তাদের নজিরবিহীন ক্ষতিসাধন করতে পেরেছে বলে যে দাবি করেছে মি. সিনওয়ারের দাবি নিঃসন্দেহে তার বিপরীত।

এগাারো দিনের লড়াইয়ে ইসরায়েলি হামলায় বিধ্বস্ত গাযা
এগাারো দিনের লড়াইয়ে ইসরায়েলি হামলায় বিধ্বস্ত গাযা

ইয়াহিয়া সিনওয়ার গত মাসের ১১ দিনের লড়াইকে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে হামাসের সামরিক সক্ষমতার একটি মহড়া বলে বর্ণনা করেছেন।

তিনি আরও বলেছেন এই সংঘাতে হামাস বেশি শক্তিশালী পক্ষ হিসাবে উঠে এসেছে।

মি. আশার বলছেন ইয়াহিয়া সিনওয়ার দাবি করেছেন হামাস তার শক্তিমত্তার যে প্রমাণ দিয়েছে তার সুবাদে হামাসের এখন পিএলও-র পুর্নবিন্যাস দাবি করার অধিকার জন্মেছে।

তিনি বলেছেন হামাস, ইসলামিক জিহাদ এবং অন্যান্য উপদলগুলোর অংশগ্রহণ না থাকলে পিএলও-র আলোচনা শুধু কথাবার্তার মধ্যেই সীমিত থাকবে। তারা কোন কিছু অর্জন করতে পারবে না।

মি. সিনওয়ার আরও বলেন, ইসরায়েলের সঙ্গে আরব বিশ্বের দেশগুলোর সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণের চেষ্টা এবং ফিলিস্তিনিদের বিভেদের কারণেই ইসরায়েল গাযায় হামলা চালাতে উৎসাহিত হচ্ছে।