সরকার বিজেএমসি’র অধীন পাটকলগুলোকে আধুনিকায়নের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে : পাটমন্ত্রী

Social Share

বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক এমপি বলেছেন, সরকার বিজেএমসি পরিচালিত রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকলগুলোর সংস্কার ও আধুনিকায়নের লক্ষ্যে শ্রমিকদের সকল পাওনা বুঝিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব গ্রহণ করেছেন। তাই কারো কোন ধরণের দুশ্চিন্তার কারণ নেই।
তিনি আজ দুপুরে রাজধানীর সিদ্ধেশ্বরীর নিজ বাসভবনে বাংলাদেশ পাটকল কর্পোরেশন (বিজেএমসি) পরিচালিত রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকলগুলোকে আধুনিকায়ন করে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে পাটকলগুলোকে আরো সক্ষম করে গড়ে তুলতে উৎপাদন বন্ধ করে শ্রমিকদের এককালীন পাওনা পরিশোধের বিষয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।
এ সময় শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মন্নুজান সুফিয়ান এমপি, বস্ত্র ও পাট সচিব লোকমান হোসেন মিয়া ও অতিরিক্ত সচিব মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ সহ শ্রমিক নেতারা উপস্থিত ছিলেন।
গোলাম দস্তগীর গাজী বলেন, মজুরি কমিশন -২০১৫ অনুযায়ী পাটকল শ্রমিকদের চলতি বছরের জুন মাসের মজুরি আগামী সপ্তাহে তাদের ব্যাংক হিসাবে পরিশোধ করা হবে। নোটিশ মেয়াদের অর্থাৎ জুলাই-আগস্টের ৬০ দিনের মজুরীও উভয় মাসে যথারীতি পরিশোধ করা হবে।
তিনি বলেন, প্রভিডেন্ট ফান্ড (পিএফ), গ্র্যাচুইটি ও গোল্ডেন হ্যান্ডশেক সুবিধাসহ অবশিষ্ট সকল পাওনার শতকরা ৫০ ভাগ নিজ নিজ ব্যাংক হিসাবে এবং বাকী শতকরা ৫০ ভাগ নিজ নিজ নামে সঞ্চয়পত্র আকারে সেপ্টেম্বর মাসের মধ্যে পরিশোধ করা হবে।
সকল ক্ষেত্রে মজুরি কমিশন-২০১৫ অনুযায়ী শ্রমিকদের পাওনা পরিশোধ করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী।
পাটমন্ত্রী বলেন, ২০১৪ সাল থেকে অবসর প্রাপ্ত শ্রমিকদের প্রাপ্য সকল বকেয়া ও বর্তমানে কর্মরত শ্রমিকদের প্রাপ্য বকেয়া মজুরী, শ্রমিকদের পিএফ জমা, গ্র্যাচুইটি এবং সেই সঙ্গে গ্র্যাচুইটির সর্বোচ্চ শতকরা ২৭ ভাগ হারে অবসায়ন সুবিধা একসঙ্গে শতভাগ পরিশোধ করা হবে।
তিনি বলেন, এজন্য সরকারী বাজেট থেকে প্রায় ৫ হাজার কোটি টাকা প্রদান করা হবে। অবসায়নের পর মিলগুলো সরকারী নিয়ন্ত্রণে পিপিপি, যৌথ উদ্যোগ, জিটুজি ও লীজ মডেলে পরিচালনার উদ্যোগ নেয়া হবে।
মন্ত্রী বলেন, নতুন মডেলে পুন:চালুকৃত মিলে অবসায়ন করা বর্তমান শ্রমিকরা অগ্রাধিকার ভিত্তিতে কাজের সুযোগ পাবে। একই সঙ্গে এ সকল মিলে নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে। সকল শ্রমিককে অবশ্যই পুনর্বাসন করা হবে।
তিনি আরো বলেন, অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিকদের পাওনা পরিশোধের জন্য ব্যাংক হিসাব নম্বর অবিলম্বে বিজেএমসিকে জানাতে হবে।