শাহবাগে শিক্ষার্থীকে অস্ত্র দেখিয়ে হুমকি, যুবক আটক

Social Share

সরস্বতী পূজার কারণে ঢাকার দুই সিটি নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তনের দাবিতে শাহবাগে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীকে পিস্তল উঁচিয়ে হুমকি দেওয়ায় আসিফ রশিদ খান মুন নামের এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ।

আজ বুধবার দুপুরে শাহবাগ মোড়ে শিক্ষার্থীদের অবরোধ চলাকালে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, নির্বাচন কমিশন অভিমুখে শিক্ষার্থীদের পদযাত্রা শাহবাগের আটকে দেওয়া হয়। এ সময় মোড়ের সবগুলো সড়ক মুখ বন্ধ করে দেয় পুলিশ। সেই হিসাবে বারডেমের সামনের সড়কমুখেও বেরিকেড দেওয়া ছিল। এ সময় একটি প্রাইভেট কার থেকে এক ব্যক্তি বের হয়ে এসে সাইড দিতে বলায় তার সঙ্গে তর্ক শুরু হয় জগন্নাথ হলের শিক্ষার্থী কপিল দেব বর্মনের। ওই ব্যক্তি পিস্তল উঁচিয়ে তাকে হুমকি দেয় বলে অভিযোগ করে কপিল দেব বর্মন। পরে শিক্ষার্থীরা ওই ব্যক্তিকে মারধর করে। এক পর্যায়ে পুলিশ তাকে হেলমেট পরিয়ে শাহবাগ থানায় নিয়ে যায়। যদিও থানায় যাওয়ার পর পুলিশ জানতে পারে, তার পিস্তলটি খোয়া গেছে। সেটি পুলিশ উদ্ধার করতে পারেনি। লোকটিকে কেউ কেউ বিদেশি বলছেন আবার কেউ বলছেন বাংলাদেশি।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) রমনা বিভাগের সহকারী কমিশনার (এসি) শেখ মোহাম্মদ শামীম  বলেন, আলিফকে আমরা পুলিশি হেফাজতে রেখেছি। শিক্ষার্থীদের সঙ্গে বাক-বিতণ্ডার একপর্যায়ে যুবক আগ্নেয়াস্ত্র বের করলে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

রমনা বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) সাজ্জাদুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, আলিফের অস্ত্রটি লাইসেন্স করা ছিল। তিনি আন্দোলনকে নিজের জীবনের জন্য হুমকি মনে করেছিলেন বলে অস্ত্র প্রদর্শন করেছিলেন এমনটি আমাদের জানিয়েছেন। পুলিশি প্রহরায় তাকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।