মার্চেই আসছে নতুন আইফোন!

1269
মার্চেই
Social Share

২০২২ সালের মার্চেই আসছে বাজারে নতুন আইফোন এসই। তবে নতুন এই ফোনের লঞ্চের দিনক্ষণ এখনও সুনির্দিষ্ট করে জানানো হয়নি।

এই ফোনে থাকতে পারে ৫জি সাপোর্ট। সঙ্গে থাকবে কোম্পানির নতুন এ১৫ বায়োনিক চিপসেট। যা থেকে আগের চেয়ে ভালো কানেক্টিভিটি ও ব্যাটারি ব্যাকআপ পাওয়া যাবে।
আইফোন এসইর আগের ভার্সনের মতো নতুন ভার্সনে ফেস আইডি ব্যবহৃত না হলেও টাচ আইডি থাকার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে ডিজাইনে বড় কোনো পরিবর্তন দেখা যাবে না। সম্প্রতি ট্রেন্ডফোর্সে প্রকাশিত প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, আগামী বছরের মার্চের মধ্যে বাজারে আসতে পারে অ্যাপলের নতুন এই স্মার্টফোন। আইফোন এসইতে থাকতে পারে অ্যাপলের এ১৫ বায়োনিক চিপসেট। চলতি বছর লঞ্চ হওয়া আইফোন ১৩ সিরিজের ফোনগুলোতে এই চিপ ব্যবহার করেছে অ্যাপল। লঞ্চের পরে এটাই হতে পারে প্রতিষ্ঠানটির সব থেকে কম দামের ৫জি স্মার্টফোন।

এ১৫ বায়োনিক এই মুহূর্তে অ্যাপলের সবচেয়ে শক্তিশালী চিপসেট। এতে রয়েছে হেক্সা কোর প্রসেসর। এর মধ্যে দুটি হাই পারফর্মেন্স কোর ও দুটি এফিশিয়েন্সি কোর রয়েছে। ৫এনএম প্রসেসে এই চিপসেট ডিজাইন করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

আইফোন এসইতে (২০২০) ব্যবহার করা হয়েছিল ৭এনএম প্রসেসের এ১৩ বায়োনিক চিপ। আইফোন ১১ সিরিজের ফোনগুলোতে এই চিপ ব্যবহার করা হয়েছিল। তাই বলা যায়, ডিজাইনের দিক থেকে খুব বেশি পরিবর্তন আনছে না অ্যাপল।

নতুন আইফোন এসইতে থাকতে পারে ৪.৭ ইঞ্চি ডিসপ্লে। অ্যাপলের অ্যানালিস্ট মিং-চি কুও সম্প্রতি জানিয়েছিলেন, ইতোমধ্যেই তুলনামূলক বড় ডিসপ্লের আইফোন এসই ডিজাইন করা শুরু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। তবে প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, ২০২৩ সালের আগে সেই ফোন বাজারে আসার সম্ভাবনা নেই। তাই আপাতত পুরনো ডিজাইনের সঙ্গে নতুন প্রসেসর যুক্ত করে বাজারে আসতে চলেছে ফোনটি।

আইফোন এসইতে (২০২০) ব্যবহার করা হয়েছিল ৭এনএম প্রসেসের এ১৩ বায়োনিক চিপ। আইফোন ১১ সিরিজের ফোনগুলোতে এই চিপ ব্যবহার করা হয়েছিল। তাই বলা যায়, ডিজাইনের দিক থেকে খুব বেশি পরিবর্তন আনছে না অ্যাপল।

নতুন আইফোন এসইতে থাকতে পারে ৪.৭ ইঞ্চি ডিসপ্লে। অ্যাপলের অ্যানালিস্ট মিং-চি কুও সম্প্রতি জানিয়েছিলেন, ইতোমধ্যেই তুলনামূলক বড় ডিসপ্লের আইফোন এসই ডিজাইন করা শুরু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। তবে প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, ২০২৩ সালের আগে সেই ফোন বাজারে আসার সম্ভাবনা নেই। তাই আপাতত পুরনো ডিজাইনের সঙ্গে নতুন প্রসেসর যুক্ত করে বাজারে আসতে চলেছে ফোনটি। মার্চেই