মন খারাপ হলেও হতাশ নন তাসকিন

দীর্ঘ ইনজুরি এবং খারাপ ফর্মের দুঃসময় কাটিয়ে বিপিএলে ফিরেছিলেন তাসকিন আহমেদ। এই তাসকিনই গত বিপিএলে বল হাতে আগুন ঝরিয়েছিলেন। কিন্তু আসরে তিনি যেন বোলিং ভুলে গেছেন! টুর্নামেন্ট শুরুর আগে বলেছিলেন, ‘এবারের বিপিএলে দেখে নিয়েন আমার গতি’। কিন্তু বাস্তবে তাকে ডাগ আউটেই বেশি বসে থাকতে হচ্ছে। পয়েন্ট টেবিলের তলানিতে থাকা রংপুর রেঞ্জার্সের হয়ে ৩ ম্যাচে সুযোগ পেয়ে যাচ্ছেতাই বোলিং করেছেন তাসকিন। ১৩০ কিলোমিটারের ওপর গতিই ওঠেনি।

চলতি বিপিএলে ৩ ম্যাচে ৬ ওভারে ৭৬ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি তাসকিন। হতাশ তাসকিন সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘আসলে কিছুটা দুঃখজনক, সবশেষ তিনটি ম্যাচ খেলার সুযোগ হয়নি। এটা আসলে ক্যারিয়ারের অংশই। সামনে সুযোগ পেলে নিজের সেরাটা দিতে চেষ্টা করব। যে তিনটি ম্যাচ খেলেছি, কোনো উইকেট পাইনি। তবে এটা নিয়ে আসলে মন খারাপ করে বসে থাকলে হবে না। ট্রেনিংয়ে চেষ্টা করছি উন্নতির। সামনে সুযোগ পেলে কাজে লাগাতে পারব আশা করছি।’

বিপিএলের আগে জাতীয় লিগে দারুণ পারফরম্যান্স ছিল তাসকিনের। হঠাৎ এই পতনের কারণ কী? তাসকিন বলেন, ‘সত্যি কথা বলতে, দুই-একটা লুজ বল হয়েছে, ওগুলোতে বাউন্ডারি হয়েছে। চট্টগ্রামে উইকেট এমন যে ভালো বলেও বাউন্ডারি এসেছে। সবমিলিয়ে ব্যাটিং বান্ধব উইকেট এবারের বিপিএলে, সব বোলারই মোটামুটি খরুচে। যদিও এটা অজুহাত হতে পারে না যে উইকেট ব্যাটিং বান্ধব। ভালো করতে পারিনি, এটা আমারই ব্যর্থতা। সামনে সুযোগ পেলে ভালো করার চেষ্টা করব।’