ভারতেই রাফাল তৈরির আকর্ষণীয় অফার দিল ফ্রান্স, ভাবছে দিল্লি

25
Social Share

ডেস্ক রিপোর্ট: সরাসরি কেনা নয়, এ বার রাফাল যুদ্ধবিমান ভারতে ‘অ্যাসেম্বল’ করার বড়সড় অফার দিল ফ্রান্স। একই সঙ্গে প্যান্থার সামরিক হেলিকপ্টারের ১০০ শতাংশ অফারও দিয়েছে প্যারিস। ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’র প্রসারে ভারত এই অফার গ্রহণ করতে পারে বলে দু’দেশের আলোচনার সঙ্গে যুক্ত একটি সূত্রে জানা গিয়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই সরাসরি কিনে আনার চেয়ে দেশে তৈরি হলে খরচ অনেকটাই কমবে।

সম্প্রতি ভারত সফরে এসেছিলেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরঁ-র নিরাপত্তা বিষয়ক উপদেষ্টা ইমানুয়েল বোর্ন। জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা (এনএসএ) অজিত ডোভাল-সহ সাউথ ব্লকের কর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে দিল্লি-প্যারিস পারস্পারিক সামরিক সমঝোতা আরও বাড়ানোর কথা বলেছেন বোর্ন। ভারতও তাতে কৌশলগত ভাবে রাজি হয়েছে। এই আলোচনার ফাঁকেই রাফাল এবং প্যান্থার ভারতে তৈরির এই প্রস্তাব দিয়েছেন বলে বৈঠকে উপস্থিত একাধিক কর্তার সূত্রে খবর।

সাউথ ব্লকের আধিকারিকদের সূত্রে খবর, প্যারিসের প্রস্তাব অনুযায়ী, প্রযুক্তি এবং যন্ত্রাংশ ভারতে পাঠাবে ফ্রান্স। যে সব যন্ত্রাংশ ভারতে তৈরি করা সম্ভব, সেগুলি এখানেই তৈরি হবে। বাকিগুলি ফ্রান্স থেকে আসবে। একইসঙ্গে প্রযুক্তিও ভারতের সঙ্গে আদানপ্রদান করতে সম্মত হয়েছে ফ্রান্স। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক আধিকারিক জানিয়েছেন, ভারতের ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’ মিশনের কথা উল্লেখ করেই এই প্রস্তাব দিয়েছেন ফরাসি কূটনীতিক।

ফ্রান্সের কাছ থেকে ৩৬টি রাফাল যুদ্ধবিমান কিনেছে ভারত। সাউথ ব্লক সূত্রে খবর, আরও রাফাল কেনার চিন্তাভাবনা শুরু হয়েছিল। এ ছাড়া বেশ কিছু দিন ধরেই নৌবাহিনীর জন্য এয়ারবাস এএস৫ এমবিই কেনা নিয়েও চলছিল ভাবনাচিন্তা। এই হেলিকপ্টারগুলি যে কোনও আবহাওয়ায় একাধিক ভূমিকা পালন করতে পারে। মাটির পাশাপাশি ওঠানামা করতে পারে যুদ্ধজাহাজ থেকেও। এমন পরিস্থিতিতে ফ্রান্সের এই লোভনীয় অফার নিয়ে ইতিমধ্যেই ভাবনাচিন্তা শুরু করেছে দিল্লি।

ডোভাল-বোর্ন আলোচনার মূল বিষয়বস্তু ছিল ভারত-ফ্রান্স কৌশলগত বোঝাপড়া। কিন্তু তার পাশাপাশি দুই ইঞ্জিনের এলসিএ অথবা এএমসিএ তৈরির জন্য ভারতের সামরিক সামগ্রী তৈরি ও গবেষণা সংস্থা ডিআরডিও-কে সাহায্য করার প্রস্তাবও দিয়েছে। কূটনৈতিক দিক থেকেও ভারতের পাশে দাঁড়ানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বোর্ন। রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদের স্থায়ী সদস্যপদ পেতে দীর্ঘদিন ধরেই লড়াই করছে ভারত। কিন্তু বেজিং-ইসলামাবাদ তাতে বার বার বাধা দিচ্ছে। কিন্তু ম্যাকরঁ প্রশাসন এই ইস্যুতে রাষ্ট্রপুঞ্জে ভারতের দাবির পক্ষেই সওয়াল করবে, আশ্বাস দিয়েছেন বোর্ন।