বিপাকে ড্রাগন! চীনা আর্মির মোকাবিলা করতে ভারতে সেনা পাঠাচ্ছে আমেরিকা

Social Share

নয়া দিল্লীঃ চীনের (China) স্বৈরাচারী মনোভাব দমনের জন্য প্রস্তুতি নিলো আমেরিকা (America)। বিশ্বের সবথেকে শক্তিশালী দেশ চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মির (Peoples Liberation Army) মোকাবিলা করার জন্য ইউরোপ (Europe) থেকে নিজেদের সেনা (American Army) সরিয়ে নেওয়ার প্রস্তুতি নিয়েছে।

উল্লেখ্য, বর্তমান সময়ে চীন নিজেদের প্রতিবেশী দেশগুলোতে লাগাতার চাপ সৃষ্টি করছে। একদিকে ভারতকে চাপে ফেলতে লাদাখে LAC এর পাশে চীন প্রচুর পরিমাণে সেনা মোতায়েন করছে, আরেকদিকে সাউথ চাইনা সমুদ্রে নিজের আক্রমণাত্বক রণনীতি আরও বাড়িয়ে দিয়েছে চীন। এছাড়াও নেপালের মতো ক্ষুদ্র দেশ গুলোও ধীরে ধীরে গ্রাস করার পরিকল্পনা নিচ্ছে চীন। আর এই কারণে চীন এখন আমেরিকার কাছে বড় বিপদ হয়ে দাঁড়িয়েছে। আর সেই কারণে আমেরিকা ইউরোপে থাকা আমেরিকান আর্মি সরিয়ে এশিয়ায় মোতায়েন করা শুরু করে দিয়েছে।

এই বিষয়ে আমেরিকার বিদেশ মন্ত্রী মাইক পম্পিও (Mike Pompeo) বলেন, ‘আমি এই মাসে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ানের বিদেশ মন্ত্রীর সাথে কথা বলেছি। তাদের জানিয়েছি যে, চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মি (PLA) লাগাতার শান্তিপূর্ণ প্রতিবেশীদের ধমকে যাচ্ছে, এছাড়াও ভারতের সাথে উত্তেজক পরিস্থিতি তৈরি করেছে। আর এই কারণে চীনের কমিউনিস্ট পার্টির বিরুদ্ধে লাগাতার মানুষের ক্ষোভ বেড়ে চলেছে।”

আমেরিকার বিদেশ মন্ত্রী মাইক পম্পিও চীনকে বিপদ বলে গণ্য করে বলেন, ‘কিছু জায়গায় আমেরিকার রিসোর্স কম হবে, কারণ আমেরিকার সেনার মোতায়েন সেই জায়গায় হবে যেখানে চীনের কমিউনিস্ট পার্টি নিজেদের আক্রমণাত্বক মনোভাব বাড়িয়েছে। আমরা আমদের সেনাকে ভারত, ভিয়েতনাম, ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া, দক্ষিণ চীন সাগরের সেই জায়গায় মোতায়েন করতে চলেছি, যেখানে চীনের সেনার বিপদ সবথেকে বেশি। তবে আমাদের এটা সুনিশ্চিন করতে হবে যে, PLA এর বিরুদ্ধে মোকাবিলার জন্য আমাদের সেনা সঠিক জায়গায় মোতায়েন হচ্ছে।”