বিজিবি অক্টোবরে ৮০ কোটি টাকার চোরাচালান-মাদকদ্রব্য জব্দ করেছে

67
বিজিবি
Social Share

বিজিবি (বাংলাদেশ বর্ডার গার্ড ) গত অক্টোবর মাসে মোট ৮০ কোটি ১১ লাখ ৪৯ হাজার টাকা মূল্যের বিভিন্ন প্রকারের চোরাচালান পণ্য সামগ্রী, অস্ত্র ও গোলাবারুদ এবং মাদকদ্রব্য জব্দ করেছে ।

গত অক্টোবর মাসে দেশের সীমান্ত এলাকাসহ অন্যান্য স্থানে অভিযান চালিয়ে এ চোলাচালান সামগ্রী জব্দ করে বিজিবি। মঙ্গলবার বিজিবি পক্ষ থেকে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।
এতে জানানো হয়েছে, জব্দকৃত মাদকের মধ্যে রয়েছে ১২,৮৬,৯৫১ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ১ কেজি ৭৭৫ গ্রাম ক্রিস্টাল মেথ আইস, ২২,৩৯৮ বোতল ফেনসিডিল, ১৮,০৭৭ বোতল বিদেশী মদ, ১,৬১৪ ক্যান বিয়ার, ১,৪৯৬ কেজি গাঁজা, ৪ কেজি ৮৭৩ গ্রাম হেরোইন, ১৭,৩৪৬টি ইনজেকশন, ৪,৩৩৭টি ইস্কাফ সিরাপ, ১,০৪৩ বোতল এমকেডিল/কফিডিল, ৩৮,৩৭৩টি এ্যানেগ্রা/সেনেগ্রা ট্যাবলেট এবং ৬৮,২২০টি অন্যান্য ট্যাবলেট।

জব্দকৃত অন্যান্য চোরাচালান দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে ৪৬৬ গ্রাম স্বর্ণ, ২৬ কেজি ৪১১ গ্রাম রূপা, ১,৫১,৬৭৪টি কসমেটিক্স সামগ্রী, ২,৭৩০টি ইমিটেশন গহনা ৬,৮১৮টি শাড়ী, ৩,৫১৪টি থ্রিপিস/শার্টপিস, ১১১ মিটার থান কাপড়, ৫,৫৮০টি তৈরী পোশাক, ২,১০৬ ঘনফুট কাঠ, ৫,৫৩৫ কেজি চা পাতা, ১৫,৮৩৫ কেজি কয়লা, ২টি ট্রাক/কাভার্ডভ্যান, ৬টি প্রাইভেটকার/মাইক্রোবাস, ৪টি পিকআপ, ৩৯টি সিএনজি/ইঞ্জিন চালিত অটোরিকশা এবং ৭৫টি মোটর সাইকেল।

উদ্ধারকৃত অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে ৪টি পিস্তল, ৭টি বিভিন্ন প্রকার গান, ৩টি ম্যাগাজিন, ৩১টি মর্টার শেল এবং ২৬ রাউন্ড গুলি।

এছাড়াও সীমান্তে বিজিবি’র অভিযানে ইয়াবাসহ বিভিন্ন প্রকার মাদক পাচার ও অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ৩০২ জন চোরাচালানীকে এবং অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রমের দায়ে ১৩১ জন বাংলাদেশি নাগরিক ও ৩ জন ভারতীয় নাগরিককে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

জব্দকৃত অন্যান্য চোরাচালান দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে ৪৬৬ গ্রাম স্বর্ণ, ২৬ কেজি ৪১১ গ্রাম রূপা, ১,৫১,৬৭৪টি কসমেটিক্স সামগ্রী, ২,৭৩০টি ইমিটেশন গহনা ৬,৮১৮টি শাড়ী, ৩,৫১৪টি থ্রিপিস/শার্টপিস, ১১১ মিটার থান কাপড়, ৫,৫৮০টি তৈরী পোশাক, ২,১০৬ ঘনফুট কাঠ, ৫,৫৩৫ কেজি চা পাতা, ১৫,৮৩৫ কেজি কয়লা, ২টি ট্রাক/কাভার্ডভ্যান, ৬টি প্রাইভেটকার/মাইক্রোবাস, ৪টি পিকআপ, ৩৯টি সিএনজি/ইঞ্জিন চালিত অটোরিকশা এবং ৭৫টি মোটর সাইকেল।

এছাড়াও সীমান্তে বিজিবি’র অভিযানে ইয়াবাসহ বিভিন্ন প্রকার মাদক পাচার ও অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ৩০২ জন চোরাচালানীকে এবং অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রমের দায়ে ১৩১ জন বাংলাদেশি নাগরিক ও ৩ জন ভারতীয় নাগরিককে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।