প্রধানমন্ত্রীর সময়োচিত নির্দেশনায় মানবপাচার ‘নজরদারি’র তালিকা থেকে বাংলাদেশ বেরিয়ে এসেছে : ইমরান আহমদ

Social Share

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ মানবপাচার সংক্রান্ত ‘নজরদারি’র তালিকা থেকে বাংলাদেশ বেরিয়ে আসায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

‘যুক্তরাষ্ট্রের মানবপাচার সংক্রান্ত বার্ষিক প্রতিবেদনে বাংলাদেশের একধাপ উন্নতি লাভ এবং এ বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ‘নজরদারি’র তালিকা থেকে বাংলাদেশ বেরিয়ে আসায়’ তিনি এ সন্তোষ প্রকাশ করেন।

মানবপাচারের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দুরদর্শী নেতৃত্ব ও সময়োচিত নির্দেশনা বাস্তবায়নের কারণেই বাংলাদেশের এই অর্জন সাধিত হয়েছে উল্লেখ করে ইমরান আহমদ বলেন,অবৈধ কার্যকলাপের জন্য রিক্রুটিং এজেন্সির লাইসেন্স বাতিল,নিরাপদ অভিবাসনের লক্ষ্যে সরকারী উদ্যোগে দেশব্যাপী প্রচারণা চালানো এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রত্যক্ষ তৎপরতায় এ অর্জন সম্ভব হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া উদ্ধৃত করে বলা হয়,ইমরান আহমদ মানবপাচারের মত জঘণ্য অপরাধের বিরুদ্ধে বর্তমান সরকারের ‘জিরো টলারেন্স’ নীতির কথাও ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন,সংশ্লিষ্ট সকল অংশীজনের ঐক্যবদ্ধ প্রয়াস ভবিষ্যতেও এ ধরনের অর্জন-লাভে সহায়ক ভূমিকা রাখবে।

ইমরান আহমদ তার দায়িত্ব-প্রাপ্ত মন্ত্রণালয়সহ পররাষ্ট্র, স্বরাষ্ট্র ও আইন মন্ত্রণালয় এবং দেশের আইন শৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত বিভিন্ন বাহিনী,আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা, বিভিন্ন উন্নয়ন সহযোগি সংস্থা, অভিবাসনের সাথে যুক্ত সিভিল সোসাইটি ও গণমাধ্যমসহ সকল অংশীজনকে সাথে নিয়ে একযোগে কাজ করার মধ্যদিয়ে এ অর্জন আরো সুসংহত করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

মানবপাচারের বিরূদ্ধে সা¤প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ সরকারের আইনী ব্যবস্থা জোরদার করার বিষয়টি তিনি বিশেষভাবে উল্লেখ করেন।