নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে সমুদ্রে মাছ শিকারের। বাগেরহাটে দুই ট্রলার মালিককে কারাদন্ড, ট্রলার জব্দ

125
Social Share

 

মাসুম হাওলাদার বাগেরহাট –
বাগেরহাটে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে সমুদ্রে মাছ শিকারের অভিযোগে দুই ট্রলার মালিককে কারাদন্ড ও দুটি ট্রলার জব্দ করেছে ভ্রাম্যমান আদালত। রবিবার সকালে বাগেরহাট শহরের কেবিবাজার ও বাজার সংলগ্ন ভৈরব নদীতে পৃথক পৃথক ভাবে অভিযান চালানো হয়। এসময় ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক হিসাবে বাগেরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছাব্বেরুল ইসলাম ও বাগেরহাট জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার রুবাইয়া বিনতে কাশেম এ দন্ডদেশ প্রদান করেন।
বাগেরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছাব্বেরুল ইসলাম বলেন, সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ শিকারের অপরাধে শহরের কেবিবাজার ও বাজার সংলগ্ন ভৈরব নদীতে অভিযান চালানো হয়। এসময় এমভি বশির ও এমভি রাসেল নামের দুটি ট্রলার জব্ধ করার পাশাপাশি ট্রলার দুটির মালিক বরগুনা জেলার পাথরঘাটা এলাকার বাসিন্দা কামরুল হাসান মিরাজ ও বাগেরহাট সদরের সুন্দরঘোনা এলাকার বাসিন্দা আলামিনকে ৭দিনের কারাদন্ড প্রদান করা হয়। এসময় ট্রলারে থাকা মাছ ৬০ হাজার টাকায় নিলাম বিক্রি করা হয়। এসময় ট্রলারে থাকা আন্তর্জতিক ভাবে আহরন নিষিদ্ধ হাঙ্গর মাছের বেশ কিছু পোনা মাছ দেখা যায়। যে কারনে নিষেধাজ্ঞা চলাকালিন সময় আগামী ২৩ জুলাই পর্যন্ত কেবি বাজার এলাকায় সকল ধরনের মাছ ধরা ট্রলার নোঙ্গর না করার জন্য সর্তক করা হয়।
বাগেরহাট জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার রুবাইয়া বিনতে কাশেম বলেন, নিষেধাজ্ঞা অম্যান্য করে মাছ শিকার ও বিক্রির অপরাধে কেবি বাজার এলাকার আড়ৎদার ই¯্রাফিল সরদার, আব্দুল মান্নান, মিরাজ হোসেন, আব্দুস সালাম ও হাফিজুল সরদারকে দুই হাজার টাকা করে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে