‘ধোনির অবসর ভারতীয় ক্রিকেটের জন্য ক্ষতি’

Social Share

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে মহেন্দ্র সিং ধোনির ফেরার আশা অনেকেই এখন ছেড়ে দিয়েছেন। অন্যদিকে অবসরও নিচ্ছেন না ভারতের সাবেক অধিনায়ক। এদিকে বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে ভারতের হারের পরে ভারতের জার্সিতে আর খেলতে দেখা যায়নি তাকে। প্রধান কোচ কোচ রবি শাস্ত্রী বলেছেন, আইপিএলের পরে ভাল না লাগলে ধোনি অবসর নিয়ে ফেলতে পারে। তবে ভারতের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক কপিল দেব মনে করেন, ধোনি অবসর নিলে তা ভারতীয় ক্রিকেটের ক্ষতি।

রবি শাস্ত্রীর ওই ঘোষণার পর থেকে ধোনিকে নিয়ে নতুন করে জল্পনা শুরু হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় লেখালেখি হয়, আইপিএলের পরেই হয়তো শেষ হয়ে যাবে ধোনির ক্যারিয়ার। এমতাবস্থায় ভারতের সাবেক অধিনায়ককে নিয়ে কপিল বলেছেন, ‘প্রত্যেককেই কোনো না কোনোদিন অবসর নিতে হয়। ধোনি অবসর নিলে তা দেশের ক্রিকেটের ক্ষতি। কারণ ভারতীয় ক্রিকেটকে দীর্ঘদিন ধরে সেবা দিয়ে গেছে সে। এখন যদিও সে খেলছে না। আমি জানি না কবে ও খেলবে নাকি একদিন জানিয়ে দেবে অনেক হয়েছে আর নয়।’

কয়েকদিন আগে বিসিসিআইয়ের কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে বাদ পড়েছেন ধোনি। কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকতে হলে যে সংখ্যক ম্যাচ খেলতে হত ধোনিকে, তা তিনি খেলেননি। সেই কারণেই তাকে চুক্তিতে রাখেনি বিসিসিআই। একই পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে হয়েছিল দুই কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকার এবং সুনীল গাভাস্কারকেও। সেই প্রসঙ্গ টেনে কপিল বলছিলেন, ‘এটা শুনে খারাপ লাগছে যে, ধোনি কেন্দ্রীয় চুক্তিতে নেই। টেন্ডুলকার, গাভাস্কারকেও একই পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছিল। তবে আমি তো বোর্ডের সঙ্গে জড়িত নই। তাই কেন ধোনিকে কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে সরানো হয়েছে তা জানি না।’