দেশের ৪৯ লাখ প্রবীণ নাগরিক বয়ষ্ক ভাতা পাচ্ছেন : সমাজকল্যাণ মন্ত্রী

Social Share

সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রবীণ বান্ধব অনেক কর্মসূিচ হাতে নিয়েছেন। ১৯৯৬ সালে ক্ষমতায় এসে তিনি বয়স্ক ভাতা কর্মসূচি প্রবর্তণ করেন যার আওতায় বর্তমানে ৪৯ লাখ প্রান্তিক প্রবীণ নাগরিক মাসিক ৫০০ টাকা হারে ভাতা পাচ্ছেন।
আজ, ৩০তম আন্তর্জাতিক প্রবীণ দিবস ২০২০ উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে যোগ দিয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ জয়নুল বারীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী মো. আশরাফ আলী খান খসরু এমপি ও সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় সম্পর্কীত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি রাশেদ খান মেনন এমপি ।
নুরুজ্জামান আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধু বাঙালিকে শাসিত থেকে শাসক বানিয়েছেন। ১৯৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুকে স্ব-পরিবারে নির্মমভাবে হত্যাকান্ডের ঘটনা উল্লেখ করে বলেন, দীর্ঘ ২১ বছর যারা দেশ পরিচালনা করেছেন তারা দেশকে পেছনের দিকে নিয়ে গেছেন। ১৯৮১ সালে নির্বাসন থেকে দেশে ফিরে এসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নকে সার্থক করার জন্য অদ্যাবধি কাজ করছেন। তিনি দেশ পরিচালনার দায়িত্বভার গ্রহণ করে সকল ক্ষেত্রে সফলতা নিয়ে এসেছেন।
মন্ত্রী আরো বলেন, প্রবীণদের সম্মানজনক জীবনযাপন নিশ্চিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় প্রণীত পিতা-মাতার ভরণ-পোষণ আইন ২০১৩ ও জাতীয় প্রবীণ নীতিমালা ২০১৩ বাস্তবায়িত হচ্ছে।
সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার অত্যন্ত সফলতার সাথে করোনা মহামারী মোকাবিলা করছে। করোনাকালে প্রবীণদের স্বাস্থ্যের দিকে সবাইকে যতœশীল হতে হবে। পর্যায়ক্রমে দেশের সকল প্রবীণ নাগরিকদেরকে ভাতার আওতায় আনা হবে ।
সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি সরকারিভাবে আরো বেশি প্রবীণ নিবাস গড়ে তোলার আহ্বান জানান। তিনি প্রবীণ সাংবাদিকদের জন্য বিশেষ ভাতার ব্যবস্থা গ্রহণ করার তাগিদ দেন।