দখল নিচ্ছে আইএসআই! কান্দাহার কাণ্ডের মূলচক্রীর ছেলে হল তালিবান সরকারের প্রতিরক্ষামন্ত্রী

56
Social Share

তালিবান আফগানিস্তানে ক্ষমতায় ফেরায় সিঁদুরে মেঘ দেখছিল অনেকেই। ভারতও ব্যতিক্রম নয়। সেই আশঙ্কা যে অমূলক নয়, এবার ফের তার প্রমাণ মিলল। ২২ বছর আগে সেই কান্দাহার বিমান অপহরণ কাণ্ড নাড়িয়ে দিয়েছিল গোটা ভারতকে। গোটা দুনিয়া বললেও ভুল হবে না। সেই কান্দাহার কাণ্ডের মূলচক্রীর ছেলেই এখন আফগানিস্তানে নতুন তালিবান সরকারের প্রতিরক্ষামন্ত্রী।
১৯৯৯ সাল। নেপাল থেকে দিল্লি যাচ্ছিল IC-814 বিমানটি। সওয়ার ছিলেন ১৭১ জন। মাঝপথেই সেটিকে ছিনিয়ে নেয় জঙ্গিরা। নামায় আফগানিস্তানের কান্দাহারে। ভারত সরকারের কাছে দাবি করে, তিন জঙ্গিকে মুক্তি দিতে হবে। জইশ–এ–মহম্মদ জঙ্গি গোষ্ঠীর প্রধান মৌলানা মাসুদ আজহার, জঙ্গি সংগঠন আল উমর মুজাহিদিনের প্রধান মুস্তাক আহমেদ জারগর এবং আল–কায়দা নেতা আহমেদ উমর সায়িদ শেখ।
বাধ্য হয়েই যাত্রীদের প্রাণের বিনিময়ে ওই তিন জঙ্গিকে ছেড়ে দেয় ভারত সরকার। অপহরণ কাণ্ডের মূল চক্রী ছিল মোল্লা ওমর। তালিবানের প্রতিষ্ঠাতা। পাক গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই–এর সাহায্যে গোটা কাণ্ড ঘটিয়েছিল ওমর। সেই ওমরের ছেলে মোল্লা মহম্মদ ইয়াকুবই এখন আফগানিস্তানের প্রতিরক্ষামন্ত্রী।
২০২১ সালের মে মাসে তালিবান মিলিটারি কমিশনের প্রধান নির্বাচিত হয় মোল্লা মহম্মদ ইয়াকুব। এছাড়াও তালিবানদের নতুন মন্ত্রিসভায় গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পেয়েছে মোল্লা হাসান আখুন্দ এবং সিরাজউদ্দিন হাক্কানি। এরা দু’‌জনও রাষ্ট্রসঙ্ঘের ঘোষিত জঙ্গি। আইএসআই–এর সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা রয়েছে এদের। এই হাক্কানির গোষ্ঠী এর আগে বহু বার আফগানিস্তানে সাধারণ নাগরিকের ওপর হামলা চালিয়েছে। এখন এরাই বসছে মসনদে। তাই ভারত সহ বহু রাষ্ট্রেরই শঙ্কা যে অমূলক নয়, তা বোঝাই যাচ্ছে। আজকাল