ডাকসু নির্বাচন : ছাত্রদলেরও ভোট বর্জন

প্রগতিশীল ছাত্রজোটসহ তিনটি প্যানেলের পর এবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) ও হল সংসদ নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দিয়েছে ছাত্রদল। ছাত্রজোটের ভোট বর্জন ঘোষণার আধঘণ্টা পর এক সংবাদ সম্মেলনে ছাত্রদল সমর্থিত প্যানেলের ভিপি প্রার্থী মোস্তাফিজুর রহমান এই ঘোষণা দেন।

সোমবার দুপুরে দেড়টার দিকে মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলনে মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘আমরা শুরু থেকেই এই নির্বাচনের অসঙ্গতি তুলে ধরেছিলাম। প্রায় সকল হলে সিল মারা ব্যালট পাওয়া গেছে। ছাত্রলীগের চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়েছে। বিভিন্ন হলে গতরাতেই ভোট দেয়া হয়েছিল।’

ছাত্রদলের প্যানেলের পক্ষ থেকে যেসব দাবি জানানো হয়েছে তারমধ্যে রয়েছে- নিরপেক্ষ শিক্ষকদের দিয়ে নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে, হামলাকারীদের বহিষ্কার করতে হবে। এই নির্বাচন প্রহসন ভোট-ডাকাতির উল্লেখ করে পুনরায় নির্বাচনের দাবিও জানান মোস্তাফিজুর রহমান।

উল্লেখ্য, এর আগে প্রগতিশীল ছাত্রজোটের ভিপি পদপ্রার্থী লিটন নন্দী সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘আমরা সম্মিলিত ভাবে বলছি, এই প্রহসন ও জালিয়াতির নির্বাচন আমরা ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করছি। সেই সঙ্গে দাবি জানাচ্ছি, এই নির্বাচন বাতিল করে নতুন ভাবে তফসিল প্রকাশ করতে হবে।’