ডলারে গুনতে হচ্ছে ২১০ পাকিস্তানি রুপি

61
Social Share

অর্থনৈতিক সংকটের জেরে স্থানীয় মুদ্রার ব্যাপক অবনমন হচ্ছে পাকিস্তানে। ডলারের বিপরীতে প্রায় প্রতিদিনই মান হারাচ্ছে পাকিস্তানি রুপি। দক্ষিণ এশিয়ার এই দেশটিতে বর্তমানে আন্ত ব্যাংক বাজারে এক ডলার কিনতে গুনতে হচ্ছে ২১০ রুপিরও বেশি। অবশ্য খোলাবাজারে এই হার আরো বেশি।

ইতিহাসে এর আগে কখনো পাকিস্তানের এই মুদ্রার মান এত নিচে নামেনি। গতকাল সোমবার এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম দ্য ডন।

প্রতিবেদনে বলা হয়, পাকিস্তানি রুপির বিপরীতে মার্কিন ডলার সোমবারও তার ঊর্ধ্বমুখী অগ্রযাত্রা অব্যাহত রেখেছে। এদিন সকালে পাকিস্তানের আন্ত ব্যাংক বাজারে প্রতি ডলার বিক্রি হয়েছে ২১০ রুপিরও বেশি দরে। তবে খোলাবাজারে ডলার বিক্রি হচ্ছে আরো বেশি দামে।

ফরেক্স অ্যাসোসিয়েশন অব পাকিস্তানের (এফএপি) তথ্য অনুসারে, গত শুক্রবার এক ডলারের বিপরীতে পাকিস্তানি মুদ্রার দাম ছিল ২০৭.৭৫ রুপি। তবে এরপর রুপির মান দ্রুত কমতে থাকে এবং সোমবার সকালে আগের তুলনায় ২.৫৫ রুপি মূল্য হারিয়ে ডলারপ্রতি পাকিস্তানি মুদ্রার দর নেমেছে ২১০.৩০ রুপিতে। তবে সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় পাকিস্তানের খোলাবাজারে ডলার বিক্রি হচ্ছিল ২১২ রুপিতে।

মেটিস গ্লোবালের পরিচালক সাঈদ বিন নাসির ডন ডটকমকে বলেন, সপ্তাহের প্রথম দিনেই ডলারের বিপরীতে পাকিস্তানি রুপি চাপে রয়েছে। কারণ পাকিস্তানের ব্যাংকগুলো ডলার সংকটে রয়েছে বলে গত সপ্তাহের শেষে খবর ছড়িয়ে পড়েছিল। তিনি বলেন, ব্যাংকগুলোতে ডলারের ঘাটতি রয়েছে এবং দেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভও কমে যাচ্ছে। এতে করে ডলারের বিপরীতে রুপির মানে নেতিবাচক ধারা অব্যাহত রয়েছে। সাঈদ বিন নাসির আরো বলেন, আইএমএফের কাছ থেকে ঋণ কর্মসূচির পুনরুজ্জীবন বা চীন থেকে অর্থ প্রবাহের আপডেট সংক্রান্ত ঘোষণা দেওয়া হলে সেটি মুদ্রাবাজারকে স্থিতিশীল করতে সাহায্য করতে পারে। সূত্র : ডন।