চীন কি ব্যাকফুটে?

চীনের পতাকা
Social Share

করোনা ভাইরাসের মহামারী শুরুর পর থেকেই চীনের একটি ভিন্ন রূপ দেখেছে বিশ্ব। তাদের কার্যক্রম দেখে মনে হচ্ছে দেশটির বিখ্যাত দার্শনিক সুন তিজুর একটি বাণীর প্রতিফলন তারা ঘটিয়েছে। বাণীটি হলো: যখন তুমি অনেক শক্তিশালী তখন সবার সামনে দুর্বলের রূপ ধরবে, এবং যখন তুমি খুব দুর্বল তখন সবলের রূপ ধরবে।

যুক্তরাষ্ট্র, আস্ট্রেলিয়া ও সর্বশেষ ভারতের সঙ্গে বিরোধিতার যেরে চীনের কূটনৈতিক দুর্বলতা ভেসে উঠেছে। বছরের শুরুতে উহানে করোনা ছড়িয়ে পড়ার পর থেকেই ব্যাকফুটে চলে গেছে চীন। সেসময় যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া ও অন্যান্য রাষ্ট্র থেকে ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার বিষয়ে তদন্তের দাবী তোলা হলেও তীব্র প্রতিক্রিয়া জানায় চীন। ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়ার দায় না নিয়ে উল্টো আগ্রাসী আচরণ শুরু করে চীন কূটনৈতিকরা। চীন নিজেকে প্রভাবশালী ও শক্তিশালী রাষ্ট্র হিসেবে প্রমাণ করতে হং কং ও তাইওায়নের ওপর চাপ প্রয়োগ করা শুরু করে। শুধু তাই নয় দক্ষিণ চীন সাগর, পূর্ব চীন সাগর ও ভারতীয় সীমান্ত এলাকায় তারা আগ্রাসনের সঙ্গে প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করে।

কিন্তু, এই আগ্রাসন প্রদর্শন করতে গিয়ে অনেক দূরে চলে গেছে চীন। যার ফলে সৃষ্টি হয়েছে নতুন ভূতাত্ত্বিক রাজনীতির। এর ফিরতিতে চীন যা পাচ্ছে তা মোটেও তাদের পরিকল্পনায় ছিল না।

উদাহরণ হিসেবে ভারতের কথাই বলা যাক। ২০১৮ ও ২০১৯ সালে দুইদফা বৈঠক করেছেন চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিং পিং ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। উপমহাদেশে দুই দেশের আন্তরিক সম্পর্কের বেশ চর্চাও ছিলো। কিন্তু সম্প্রতি গালওয়ান উপত্যকায় চীন ও ভারতীয় সেনাদের সংঘাত সব মুছে দিয়েছে। ভারতের দাবী, চীন যে আচরণ করেছে তা বিশ্বাসঘাতকতার পরিচয় বহন করে।

ভারত এই ঘটনার পর নতুন পররাষ্ট্রনীতি গ্রহণ করেছে। যাতে ফায়দা তাদেরই হয়েছে। ব্যাকফুটে চলে গেছে চীন। অন্যান্য বেশ কিছু রাষ্ট্র ভারতকে সমর্থন দেয়ায় চীন পড়েছে আরো সংকটে। মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও চীনের ভূমিকার তীব্র নিন্দা করেছেন। এ তালিকায় ফ্রান্স প্রতিরক্ষামন্ত্রী ফ্লোরেন্স প্যালি, ভারতে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত সাতোশি সুজিকি ও অস্ট্রেলিয়ান হাইকমিশনার ব্যারি ও’ফ্যারেল আছেন। তারা সবাই চীনা আগ্রাসনের নিন্দা জানিয়েছেন।

তাই বুঝাই যাচ্ছে সুন তিজুর বাণীটি চীনের ওপরই ব্যাকফায়ার হয়েছে। বিশ্ব দরবারে বর্তমানে বেইজিং খুব নাজুক পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে। চীনের এখন বন্ধুর তুলনায় শত্রুর সংখ্যা বেশি।

অনুবাদ: দ্য সিঙ্গাপুর পোস্ট, এডিটরিয়াল।