চীনকে ঠেকাতে পশ্চিমারা ‘এশিয়ান ন্যাটো’ প্রতিষ্ঠায় বদ্ধপরিকর

Social Share

এশিয়া অঞ্চলে চীনের সামরিক উচ্চাকাঙ্ক্ষা ঠেকাতে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের কর্মকর্তারা ‘এশিয়ান ন্যাটো’ নামে নতুন একটি সামরিক জোট গঠনের জোরালো চেষ্টা চালাচ্ছেন।

মূলত কমিউনিস্ট পার্টি শাসিত চীনের সামরিক সক্ষমতা এবং তাদের আক্রমণাত্মক বৈদেশিক নীতির কারণে পশ্চিমারা এই জোট গঠনকে তরান্বিত করছে। মার্কিন সংবাদ মাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্টের বরাত দিয়ে এই খবর প্রকাশ করেছে ইন্ডিয়ান টাইমস।

খবরে বলা হয়েছে, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পরবর্তী সময়ে দেশগুলোর মধ্যে স্নায়ুযুদ্ধের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের ক্ষেত্রে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া চুক্তি সংস্থা (স্যাটো) তেমন কার্যকরী ভূমিকা রাখতে পারেনি। অন্যদিকে বিশ্বের অন্যতম পরাশক্তি হিসেবে চীনের আত্মপ্রকাশ এশিয়া অঞ্চলে ক্ষমতার ভারসাম্য বদলে দিচ্ছে। তাই ক্ষমতার ভারসাম্য আনতেই নতুন এই জোট গঠন করা প্রয়োজন।

এ বিষয়ে ন্যাটোর মহাসচিব জনস স্টোলেনবার্গ বলেন, এটা বৈশ্বিক ক্ষমতার ভারসাম্যকে পরিবর্তন করার মতোই, যা ন্যাটোকে আরও বৈশ্বিক হয়ে উঠতে সাহায্য করবে।

এদিকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সরকার এশিয়া অঞ্চলে সামরিক জোট গঠনে অনেকটা পথ চুপিসারে এগিয়ে গেছে। ধারণা করা হচ্ছে, বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্র, জাপান, অস্ট্রেলিয়া ও ভারতের মধ্যে যে ধরনের প্রতিরক্ষা চুক্তি রয়েছে, এর আলোকে এই জোট থেকেই ‘এশিয়ান ন্যাটো’র সূচনা হতে পারে।