চলতি বছরে সীমান্তে ৩,১৬৮ বার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করেছে পাকিস্তান

Social Share

নয়াদিল্লি: লাদাখ সীমান্তে চিনা আগ্রাসন অব্যাহত। এদিকে পাকিস্তানও লাগাতার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করে চলেছে। পাক সেনা লাগাতার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন থেকে শুরু করে অনুপ্রবেশ, সীমান্তের ওপার থেকে গোলাগুলি বর্ষণ করেই যাচ্ছে।

মঙ্গলবার কেন্দ্র জানিয়েছে, শুধু চলতি বছরের প্রথম ৯ মাসেই নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর এলাকায় ৩,১৬৮ বার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করেছে পাকিস্তান। যা গত ১৭ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি বার। এদিন সংসদে এই পরিসংখ্যান পেশ করেন স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শ্রীপদ নাইক।

শ্রীপদ নাইক জানান, চলতি বছরের গত ১ জানুয়ারি থেকে ৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে ৩,১৬৮ বার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করেছে পাক সেনা। পাশাপাশি, জম্মু ও কাশ্মীরে ১৯৮ কিলোমিটার দীর্ঘ আন্তর্জাতিক সীমান্তবর্তী এলাকাতেও উত্তেজনা ছড়িয়েছে তারা। ওই এলাকায় চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে আগস্টের মধ্যে ২৪২ বার সীমান্তের ওপার থেকে গোলা বর্ষণের ঘটনা ঘটেছে।

শ্রীপদ নাইক জানান, কামান থেকে শুরু করে মর্টার-হামলা বা গুলি চালানো অথবা জঙ্গি অনুপ্রবেশ ঘটানো— বার বার সীমান্তের এপারের এলাকাকে টার্গেট করেছে পাক সেনা।

এ প্রসঙ্গে ভারতীয় সেনার এক শীর্ষ কর্তা বলেন, পাকিস্তান তার ‘বন্ধু’ চিনকে সমর্থনে চলেছে। শীতকালে তুষারপাত শুরু হলে জম্মু-কাশ্মীরের রাস্তা বন্ধ হওয়ার আগে সেখানে যত সম্ভব জঙ্গির অনুপ্রবেশ ঘটানো এবং অস্ত্রশস্ত্র ঢোকানোরও চেষ্টা চালাচ্ছে পাকিস্তান।