কাশ্মীরে যেতে দেওয়া হলো না মার্কিন সিনেটরকে

সম্প্রতি ভারতের জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে দেশটির কেন্দ্রীয় সরকার। এরপর থেকেই অবরুদ্ধ অবস্থায় রয়েছে জম্মু-কাশ্মীর। এরপর থেকে কাশ্মীর নিয়ে নানা প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে অনেকের মনেই। কাশ্মীর প্রসঙ্গে ভারতের জাতীয় রাজনীতি থেকে শুরু করে আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে তোলপাড় চরমে। আর এই পরিস্থিতিতে কাশ্মীরে প্রবেশ করতে চেয়েছিলেন মার্কিন ক্রিস ভ্যান হোলেন । তবে ভারত সরকার সেই অনুমতি না দেওয়ার পাল্টা প্রশ্নবাণে কাশ্মীর ইস্যুকে নতুন করে খুঁচিয়ে তুললেন এই মার্কিনী। ডেমোক্রেটিক পার্টির নেতা ও সিনেটর ক্রিস ভ্যান হোলেন  প্রশ্ন তোলেন, ‘কী লুকোনোর আছে ভারত সরকারের?’

যুক্তরাষ্ট্রের ডেমোক্রেটিক পার্টির নেতা ক্রিস ভ্যান হোলেন। কয়েকদিন আগে কাশ্মীরে প্রবেশ করতে চেয়ে আবেদন জানান এই মার্কিনী রাজনীতিবিদ । তবে তাঁর সেই আবেদন সরাসরি খারিজ করে দেয় ভারত, এরপরই তিনি ওই প্রশ্ন তোলেন।

মার্কিনি রাজনীতিবিদ ক্রিস হোলেন , মোদী সরকারকে নিশানা করে প্রশ্ন তুলেছেন, ‘ আমি কাশ্মীরে গিয়ে সরেজমিনে দেখতে চেয়েছিলাম সেখানে কী চলছে, তবে ভারত সরকার তা অনুমোদন করেনি। এক সপ্তাহ আগে আমি এই আবেদন করেছিলাম। তবে আমাকে বলা হয়, সেখানে যাওয়ার এটা সঠিক সময় নয়।

ক্রিস বলেন, আমার ব্যক্তিগত মত, যদি তোমার কিছু লুকোনোরই না থাকে তাহলে কোন ভয়ে সেখানে পর্যটকদের অনুমতি দেওয়া হচ্ছে না!

তিনি জানিয়েছেন, কাশ্মীরে ‘মানবিকতার’ সমস্যা চলছে। প্রসঙ্গত, ‘ফরেন অ্যাপ্রোপ্রিয়েশন অ্যাক্ট ২০২০’ অনুযায়ী ভারত সরকারকে কাশ্মীর সম্পর্কে একটি রিপোর্ট জমা দিতে হবে। যেখানে প্রাথমিক কৌতূহল থাকবে, কাশ্মীরে সমস্ত রকমের সংযোগ রক্ষা হয়েছে কি না , তা নিয়ে।

সূত্র : দ্য হিন্দু, ওয়ান ইন্ডিয়া