উপজেলা পরিষদ ভবনে মানসিক প্রতিবন্ধী নিয়ে বিড়ম্বনা

39
Social Share
স্টার্ফ রিপোর্টার: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলা পরিষদ ভবনের নিচতলায় দীর্ঘদিন ধরে বসবাস করা মানসিক প্রতিবন্ধীর কারণে অতিষ্ঠ কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। অজ্ঞাত ওই মানসিক প্রতিবন্ধী রাতের বেলায় সেখানে আগুন জালিয়ে কাজ কর্ম করে। ফলে হুমকিতে রয়েছে পরিষদ ভবন।
দেখা যায় অজ্ঞাত ওই প্রতিবন্ধী প্রায় এক বছর আগে ভূঞাপুর উপজেলা পরিষদ ভবনের নিচতলায় আশ্রয় নেয়। সেখানে তিনি ময়লা-আবর্জনার স্তুব বানিয়ে সেখানেই তিনি প্রস্রাব-পায়খানা করে বসবাস করছে। গাছের ডাল ও লতাপাতা সংগ্রহ করে নিচতলার পথ আটকিয়ে স্তুব করে রেখেছে। সন্ধ্যার পরই সেখানেই আগুন জ্বালানো হয়। ফলে সেখানে কালো ধোয়ায় অন্ধকার হয়ে যায়। দীর্ঘদিন ধরে সেখানে বসবাস করলেও তাকে অপসারণে কোন উদ্যোগ নেয়া হয়নি।
উপজেলা কৃষি অফিসের কর্মচারীরা জানান, পাগলটি দীর্ঘদিন ধরে সেখানে বসবাস করছে। দুর্গন্ধে সেখানে যাওয়া যায় না। কিছু বললেই লাঠি দিয়ে মারতে আসে। রাতের বেলায় সে বিভিন্ন এলাকায় ঘুরাফেরা করে। দিনের বেলায় পরিষদ ভবনের নিচতলায় বসে থাকে।
উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মোহাম্মদ শহিদুজ্জামান মাহমুদ বলেন, ওই অজ্ঞাত প্রতিবন্ধীকে ভবঘুরে ঘোষণা করতে হবে আগে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাকে ভবঘুরে ঘোষণা করে সেই ঘোষণাপত্র পুলিশের কাছে পাঠিয়ে দিবে। পরে পুলিশ ময়মনসিংহের ত্রিশাল সরকারি আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠাবে ওই প্রতিবন্ধীকে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছা. ইশরাত জাহান বলেন, উপজেলা পরিষদ ভবনে থাকা ওই প্রতিবন্ধীকে সেখান থেকে অপসারণের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।