অভিনেতা সাদেক বাচ্চু আর নেই

Social Share

ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেতা সাদেক বাচ্চু আর নেই। আজ দুপুরে তিনি রাজধানীর ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইন্ডেকাল করেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. আশীষ কুমার চক্রবর্তী বাসসকে তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন।
সাদেক বাচ্চুর পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ঠান্ডা-জ্বরে আক্রান্ড হলে গত ৭ সেপ্টেম্বর এই অভিনেতাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর ১১ সেপ্টেম্বর তার করোনা পরীক্ষার ফল পজিটিভ আসে। অবস্থার অবনতি হলে একদিন পর পারিবারিক সিদ্ধান্ডে তাকে মহাখালীর ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তিনি কোভিড ইউনিটের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) ভর্তি ছিলেন।
ডা. আশীষ কুমার চক্রবর্তী জানান, রোববার থেকেই অবস্থা সঙ্কটাপন্ন ছিলো সাদেক বাচ্চুর। শতভাগ অক্সিজেন সাপোর্টে রাখা হয় তাকে। রোববার দুপুরে প্রফেসর রেদোয়ানুর রহমানের নেতৃত্বে ৫ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড বসেছিল। তারপর উনার চিকিৎসায় কিছুটা পরিবর্তন নিয়ে আসা হয়। তবে শেষ রক্ষা হলো না এ অভিনেতার।
সাদেক বাচ্চু ৫০ বছরের ক্যারিয়ারে ৫শ’র বেশি ছবিতে অভিনয় করেছেন। ১৯৮৫ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘রামের সুমতি’ ছবির মাধ্যমে ঢাকাই সিনেমায় তার অভিষেক। সিনেমার বাইরেও দীর্ঘ ক্যারিয়ারে মঞ্চ, বেতার, টিভি নাটকে বিচরণ ছিল তার। নায়ক আলমগীর পরিচালিত ‘একটি সিনেমার গল্প’ ছবিতে অভিনয়ের সুবাদে ২০১৮ সালে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান তিনি। মঞ্চ নাটক দিয়ে শুরু হয় তার অভিনয় জীবন। মতিঝিল থিয়েটারের প্রতিষ্ঠাতা তিনি। এই দলের সভাপতিও তিনিই। বেতারে এক সময় প্রচুর নাটক করেছেন। বেতারের খেলাঘর তার আলোচিত একটি নাটক। টেলিভিশন নাটকে প্রথম অভিনয় করেন ১৯৭৪ সালে। নাটকটির নাম ছিল প্রথম অঙ্গীকার।
মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর।১৯৫৫ সালের ১ জানুয়ারি চাঁদপুরে জন্মগ্রহণ করেন গুণী এই অভিনেতা। অভিনয় ছাড়াও দীর্ঘ দিন তিনি বাংলাদেশ ডাক বিভাগে চাকরি করেছেন।